পুঁজিবাজার এক জটিল বাজার: অর্থমন্ত্রী

প্রকাশঃ জানুয়ারি ২৯, ২০১৫ সময়ঃ ২:৩০ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ২:৪৭ অপরাহ্ণ

নিজেস্ব প্রতিবেদক, প্রতিক্ষণ ডটকম

mohitপুঁজিবাজার হলো অত্যন্ত জটিল একটি বাজার বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত।

তিনি বলেন, পুঁজি বাজার নিয়ে বেশি কথা বলা ঠিক নয়। কারণ কথা বললেই এর জটিলতা আরও বেড়ে যায়।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর তোপখানা রোডে বাংলাদেশ ইন্সটিটিউট অব ক্যাপিটাল মার্কেট (বিআইসিএম) আয়োজিত একটি কোর্সের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এই মন্তব্য করেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, পুঁজিবাজার ওঠা- নামা একটা স্বাভাবিক ব্যাপার। প্রতিটি পুঁজিবাজারে সেটা হয়ে থাকে। এই বাজার নিয়ে বেশি কথা বলা ঠিক না। বেশি কথা বললে এই বাজারের জটিলতা আরও বেড়ে যায়।

আব্দুল মুহিত বলেন, আমাদের পুঁজিবাজারের বয়স প্রায় ৭০ বছর হলেও বাস্তবে রূপ পেয়েছে স্বল্প সময় হয়েছে। এই বাজারে দুই বার দুইটি বুদবুদের সঙ্গে আমাদের পরিচয় হয়েছে। পুঁজিবাজারে বুদবুদের সঙ্গে পরিচয় হওয়া আশ্চর্যের কিছু নয়। প্রথম বুদবুদ আসার পর বাজার প্রায় ৮ থেকে ১০ বছর নিস্তেজ হয়েছিল। আর দ্বিতীয় বুদবুদ থেকে উত্তরণে আমাদের ৪ থেকে ৫ বছর লেগে গেছে। তবে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন(বিএসইসি) পুঁজিবাজারটাকে অত্যন্ত শক্ত অবস্থানে নিয়ে গেছে। এতে আমি গর্বিত।

অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে বাংলাদেশ সিকিউরটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান ড. এম খায়রুল হোসেন বলেন, এই কোর্স শেষ করার শিক্ষার্থীদের মাঝে অর্ন্তনিহিত প্রতিভা জাগ্রত হবে। পুঁজিবাজের বেসিক এনালেটিক্যাল নিয়ম- কানুন সম্পর্কে জানতে পারবেন। এতে করে সিদ্ধান্ত নেওয়ার সক্ষমতা বেড়ে যাবে। কর্পোরেট গর্ভনেন্স গাইডলাইন্স থেকে শুরু করে অন্যান্য যে রেগুলেটরি রয়েছে তার বিষয়ে জ্ঞান অর্জন করতে পারবেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব ড. এম আসলাম আলম, বিআইসিএমের প্রেসিডেন্ট মো.আব্দুল হান্নান জোয়ার্দার ও বিএসইসির কমিশনররা।

পিজিডিসিএম-এ কোর কোর্স, ইন্টারমিডিয়েট কোর্স ও অ্যাডভান্স কোর্স এই ৩ শিরোনামে ভাগ করা হয়েছে। যেখানে প্রতিটি ভাগে থাকছে ৪টি করে বিষয়। আসন সংখ্যা ৪৫টি। এর মধ্যে আইসিবি, আইসিএমএবি, আইসিএসবিসহ ক্যাপটিাল মার্কেট রেগুলেটর অ্যান্ড ইন্ডাষ্ট্রিয়াল রেগুলেটদের জন্য ২০ শতাংশ হারে ৯টি আসন বরাদ্দ থাকবে। আর ৩৬টি আসনে লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষার মাধ্যমে আসন বরাদ্দ করা হবে।

কোর্স করতে ব্যয় হবে- এডমিশন ৯ হাজার, প্রতিটি বিষয় ৭ হাজার হিসাবে ১২টিতে ৮৪ হাজার, ল্যাব ফি ৩ হাজার ও লাইব্রেরী ৩ হাজার টাকা। মোট ৯৯ হাজার টাকা ব্যায় হবে। আর ক্লাস হবে সকাল ৯ থেকে ১২ টা, দুপুর ১২ টা থেকে বিকাল ৩টা ও বিকাল ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত।

প্রতিক্ষণ /এডি/বাপ্পি

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ ক্রিকেট স্কোর

আর্কাইভ

0cc0