বিশ্বের গণতন্ত্র সূচকে বাংলাদেশ ৮৪তম

প্রকাশঃ জানুয়ারি ২৭, ২০১৭ সময়ঃ ৭:৪২ পূর্বাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৭:৪২ পূর্বাহ্ণ

349economist‘দি ইকোনমিস্ট’-এর ইন্টেলিজেন্স ইউনিটের তথ্য অনুযায়ী, বাংলাদেশ গণতন্ত্রের ক্ষেত্রে মাঝামাঝি স্তরে অবস্থান করছে। বিশ্বে গণতন্ত্র সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান ৮৪তম। পত্রিকার অনলাইন সংস্করণ প্রতিবেদনটি প্রকাশ করেছে।

‘ডেমোক্রেসি ইনডেক্স ২০১৬ নামে’ ঐ প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। বলা হয়, বিশ্বের ১৬৭টি দেশের মধ্যে মাত্র ১৯টি দেশে পূর্ণ গণতন্ত্র চালু আছে। পৃথিবীর মোট জনসংখ্যার মাত্র ৪ দশমিক ৫ শতাংশ মানুষ ঐ সব দেশে বাস করে।

৮৪তম অবস্থানে থাকা বাংলাদেশের মোট স্কোর ৫ দশমিক ৭৩। অন্যান্য ক্ষেত্রেও নম্বর দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় বাংলাদেশ পেয়েছে ৭ দশমিক ৪২। সরকারের কার্যকারিতায় পেয়েছে ৫ দশমিক ৭। রাজনৈতিক অংশগ্রহণে পেয়েছে ৫। রাজনৈতিক সংস্কৃতিতে পেয়েছে ৪ দশমিক ৩৮ এবং ‘সিভিল লিবার্টিজ’ নামে একটি শাখায় বাংলাদেশ পেয়েছে ৬ দশমিক ৭৬।

ওই তালিকায় শীর্ষে আছে ইউরোপের দেশ নরওয়ে। দেশটির মোট স্কোর ৯ দশমিক ৯৩। এর মধ্যে নির্বাচনী প্রক্রিয়ায় নরওয়ে পেয়েছে ১০। সরকারের কার্যকারিতায় পেয়েছে ৯ দশমিক ৬৪। রাজনৈতিক অংশগ্রহণে পেয়েছে ১০। রাজনৈতিক সংস্কৃতিতে পেয়েছে ১০। এবং ‘সিভিল লিবার্টিজ’ নামে একটি শাখায় নরওয়ে পেয়েছে ১০।

নরওয়ের পরেই শীর্ষ দশে আছে আইসল্যান্ড, সুইডেন, নিউজিল্যান্ড, ডেনমার্ক, কানাডা, আয়ারল্যান্ড, সুইজারল্যান্ড, ফিনল্যান্ড এবং অস্ট্রেলিয়া।

তালিকায় থাকা সর্বনিম্ন দেশটির নাম উত্তর কোরিয়া।

দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে শীর্ষে আছে ভারত। ভারতের অবস্থান ৩২। এরপরই ৬৬তম স্থানে আছে শ্রীলঙ্কা। ভুটানের অবস্থান ৯৮তম। নেপালের অবস্থান ১০২। পাকিস্তানের অবস্থান ১১১তম। আফগানিস্তানের অবস্থান ১৪৯।

ওই তালিকায় দেখা যায়, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান ২১তম। প্রতিবেদনে বলা হয়, আগেরবারের তুলনায় যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান পিছিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের একধাপ আগেই আছে জাপান। আর ব্রেক্সিট নিয়ে গত বছর আলোচনায় থাকা যুক্তরাজ্যের অবস্থান ১৬তম।

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য



আর্কাইভ

মে ২০১৭
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« এপ্রিল    
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  
0cc0