পুরো ঘরকে সৌদি পতাকায় সাজালেন এক ফুটবল প্রেমিক

প্রথম প্রকাশঃ নভেম্বর ২০, ২০২২ সময়ঃ ১:৫০ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১:৫০ অপরাহ্ণ

লক্ষ্মীপুর প্রতিবেদক

যখন-ই বিশ্বকাপ ফুটবল আসর শুরু হয়, তার আগে থেকেই বাংলাদেশে মেসি আর নেইমারের ভক্তরা দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়ে। বিশ্বকাপ চলাকালে পুরো বাংলাদেশটাই মুল দুই ভাগে ভাগ হয়ে যায়। কিন্তু এবার ভিন্নধর্মী এক ফুটবল প্রেমির খোঁজ পাওয়া গেছে লক্ষ্মীপুরে।

সৌদি আরবকে ভালোবেসে নিজের টিনশেড বাড়িটিকে সৌদি আরবের পতাকার রঙ্গে রাঙ্গিয়ে দিলেন এক ফুটবল ভক্ত। আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল ও জার্মানি সমর্থকদের ভিড়ে ব্যতিক্রম এই সমর্থক নজর কাড়ছেন সবার।

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার বাঙ্গাখাঁ ইউনিয়নে দেখা মিলবে সেই বাড়িটির। এ গ্রামের নুর মোহাম্মদ আজাদ নামে এক ভক্ত নিজের পছন্দের দল সৌদি আরবকে ভালোবেসে নিজের টিনের ঘরকে রাঙিয়েছেন সে দেশের পতাকার রঙে। এছাড়া ঘরের সামনে টাঙিয়েছেন সৌদি আরবের পতাকা। নুর মোহাম্মদ আজাদ বাঙ্গাখাঁ ইউনিয়নের বাঙ্গাখাঁ গ্রামের রুহুল আমিনের ছেলে।

টিনশেড বাড়িটিকে সৌদি আরবের পতাকার রঙ দিয়ে সাজিয়ে ব্যতিক্রমী এক আয়োজন করে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন এই ভক্ত। সবুজ এবং সাদা রঙে রাঙানো বাড়িটি বিশেষভাবে পরিচিতি পেয়েছে স্থানীয়দের কাছে। ব্যতিক্রম ওই বাড়িটি দেখতে অনেকেই দূর-দূরান্ত থেকে ছুটে আসছেন অনেকে। কেউ কেউ আবার বেশ উৎসাহের সাথেই তুলছেন সেলফিও।

এলাকাবাসী জানায়, এবার কাতার বিশ্বকাপ-২০২২ ফুটবলে অনেকে আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল ও জার্মানি সমর্থক। এ সমর্থকদের ভিড়ে নুর মোহাম্মদ এক ব্যতিক্রমী সমর্থক। তিনি সৌদি আরব দলের ভক্ত হয়ে সবার নজর কাড়ছেন। তাই তার টিনশেড ঘরটিকে সৌদি আরব পতাকার রঙে রাঙিয়েছেন। এটা অবশ্যই প্রশংসনীয়। তার এ ব্যতিক্রমী উদ্যোগ দেখে সবার কাছে ভালো লেগেছে।

নুর মোহাম্মদ আজাদ জানিয়েছেন, সৌদি আরব আমাদের প্রিয়নবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) এর জন্মভূমি। এছাড়া দেশটিতে বিপুল পরিমাণ সংখ্যক বাঙালির কর্মসংস্থান সৃষ্টি হয়েছে। প্রবাসীদের উপার্জিত রেমিট্যান্স আসছে সে দেশ থেকে। বাংলাদেশকে অর্থনৈতিকভাবে বিভিন্ন সহযোগিতা করছে সৌদি আরব। যে কোনো দুর্যোগে সৌদি আরবের অবদানকেও আমি স্মরণ করি। তাই বিশ্বকাপ ফুটবলে সৌদি আরবকে আমি সমর্থন করে আসছি। এজন্যই আমার বসতঘরকে সৌদি আরবের পতাকার রঙে রাঙিয়েছি।

ফুটবল খেলা নিয়ে তিনি আরো বলেন, ৩২টি দল খেলায় অংশ নেবে। তবে চ্যাম্পিয়ন হবে একদল। কিন্তু সব দলেরই কমবেশি সমর্থক আছে। সে হিসেবেই আমি সৌদি আরবের সমর্থক। এ দলটিকে যে চ্যাম্পিয়ন হতে হবে, তা নয়। তারা একটা পর্যায়ে অন্তত যাবে। ভালো খেলবে।

সূত্র : ফেসবুক

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য

20G