আলু ছাড়া জীবন অসম্পূর্ণ!

প্রকাশঃ অক্টোবর ১৪, ২০২০ সময়ঃ ৯:৩৪ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৯:৪৫ অপরাহ্ণ

আলু ছাড়া জীবন অসম্পূর্ণ! দুনিয়ার তাবৎ রান্নায় আমার আলু লাগবে। খাবারের স্বাদ নিয়ে কোনোদিনই আমার কোনো সমস্যা নাই। আমার কাছে সমস্ত খাবার সুস্বাদু। শুধু তরকারিতে আলু কম হলে আম্মার দিকে একটু অসহায়ের মতো তাকিয়ে থাকি!! সব ধরনের তরকারির সঙ্গে মিশে যাওয়ার প্রবণতা আলুর প্রতি মুগ্ধতা বাড়ায়!
ব্যক্তিজীবনে বরাবরই আমি আলুর প্রতুলতা দেখে বড় হয়েছি। বাবার পিএইচডির গবেষণা ছিলো আলুর ওপর। বাবা কয়েক মাস অন্তর অন্তর জমিতে আলু লাগাতেন এবং সেগুলো নিয়ে গবেষণা করতেন।
আর সারা বছরই বাবার গবেষণার আলু, বস্তা ভর্তি হয়ে বাসায় আসতে থাকতো। আত্মীয়স্বজনেরা তাদের বাড়ির আম, কাঠাল, পেঁপে, জাম্বুরা পাঠাতেন আমাদের বাসায়। আর আমরা সবার বাসায় পাঠাতাম বাবার গবেষণার খেতের আলু!!
আলুর দাম বাড়ার আগ পর্যন্ত এতো বছরে সত্যিই আলুকে বড্ড টেকেন ফর গ্র্যান্টেড ধরে নিয়েছিলাম। জানতাম, প্রিয়জন কিংবা ভালোবাসার মানুষের মতো মুখ ফিরিয়ে সে চলে যাবে না কোনোদিন।
কয়েকদিন আগে আলু ছাড়া বেগুন ভাজির দিকে ফ্যালফ্যাল করে তাকায়ে ছিলাম। তারপর আম্মার কাছ থেকে জানলাম আলুর দামের ঊর্ধ্বগতির ব্যাপারে। সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী ফারুক সাহেবের কথা মনে পড়লো। তাঁর সেই অমিয় বাণী—
“বেশি বেশি আলু খান
ভাতের ওপর চাপ কমান”
আমার উদাসীন মনে আরেকটু ব্যথা দিতে ছোটুটা ইচ্ছা করেই খোঁচা দিয়ে বলে বসলো, “এবার যদি সিঙ্গারার দাম বেড়ে যায় আপি তোমার কী হবে?”… প্রসঙ্গত বলে রাখি, কয়েকটা সিঙ্গারা খাবার আকাঙ্ক্ষায় প্রতিদিন আমি সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠি। ঘুম থেকে উঠতে দেরী হলে সিঙ্গারা থাকবে না- এইটাই আমার সকালে ঘুম থেকে ওঠার একমাত্র মোটিভেশান।
আলু তো কেবল আলু না, আলু একটা আবেগ। আলু আমাদের পারিবারিক এবং সামাজিক সৌহার্দ্যের প্রতীক। সবার সঙ্গে আষ্টেপৃষ্টে জড়িয়ে হেসেখেলে মিলেমিশে বাঁচার প্রেরণা!
অমূল্য আলুর বাজার মূল্য কমে আসুক। আলু নিয়ে সিন্ডিকেট না হোক। ভালোবাসা আর আবেগ নিয়ে সিন্ডিকেট করতে নাই, এই বোধ জাগ্রত হোক!
ফারাহ দোলন
গণমাধ্যমকর্মী

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য



আর্কাইভ

October 2020
S S M T W T F
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31  
20G