ছিন্নমূল শিশুদের ঈদ পোশাক দিলো মিডিয়া মিউজিয়াম ইয়ুথ ক্লাব

প্রকাশঃ জুন ২৪, ২০১৭ সময়ঃ ৬:২৬ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৬:২৬ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক :

শরিফুল ইসলাম। বয়স ১১ হবে হয়তো। বাবা নেই। ছেড়ে গেছেন কয়েক বছর হলো। মা আছেন। সাথে আরও দুই বোন। শরিফুল নিজে হোটেলে কাজ করে। বোন দুটি তার ছোট। ছেড়া শার্টের বোতামে শরীর দেখা যায় ছোট্ট ছেলেটির। কখনো আবার খালি গায়ে হোটেলের বাসন-কোসন পরিস্কার করে। খালি গায়ে থাকায় হোটেল মালিকের মারধর খেতে হয়েছে তাকে। তবে আজ তার দুচোখে জল ছলছল করছে; ভিন্ন এক অনুভূতি। চোখের পানি ফেলতে ফেলতে শফিক বলেন, ‘স্যার আজই আমার ঈদের দিন। বছরে কখনো এমন ভালো লাগে না। আপনাদের অনেক ভালো হবে।’

শুধু শফিকুল নয়, এসেছে তার বোনসহ আরও অনেকে পথশিশু। নতুন জামা পেয়েছে সবাই। পথশিশুদের মুখে হাসি ফোটানের লক্ষ্যে ‘মিডিয়া মিউজিয়াম ইয়ুথ ক্লাব’ এবারও নতুন জামা দিয়েছে তাদের। ২৪ জুন রাজধানীর তেজগাঁও রেল স্টেশনে বস্তিতে ৪৮ জন ছিন্নমূল শিশুর মধ্যে এই পোশাক বিতরণ করা হয়।

ক্লাবটির প্রেসিডেন্ট এম. এম. বাদশাহ্ মনে করেন, ‘ঈদের দিনে এবার আমাদের আশেপাশে কোন শিশুরও ছলছল চোখ দেখতে চাই না। তাই কয়েকটা দিন হাতে রেখেই আমরা আমাদের ক্যাম্পেইন শুরু করেছি। আর এবারও আমাদের সাথে আছে সেইসব নিরলস পরিশ্রমী মুখগুলো যাদের কারণেই সফল হয়েছিল আমাদের অতীত পথচলা। কৃতজ্ঞতা জানাই, সেসব হৃদয়বান বন্ধু সুহৃদ স্বজনদের, যারা শিশুদের নতুন পোষাব বিতরণ কাজে মিডিয়া মিউজিয়াম ইয়ুথ ক্লাবের পাশে দাড়িয়েছেন’।

এম. এম. বাদশাহ্ আরো বলেন, এভাবে আমাদের যার যেটুকু সামর্থ আছে তা নিয়ে অসহায় শিশুদের মুখে হাসি ফোটালে, আগামীর ভবিষ্যত এই শিশুরা হাসবে, এগিয়ে যাবে দেশ।

পোশাক বিবরণের সময় উপস্থিত ছিলেন, মিডিয়া মিউজিয়াম ইয়ুথ ক্লাবের প্রেসিডেন্ট এম. এম. বাদশাহ, ভাইস প্রেসিডেন্ট রিয়াজুল ইসলাম, মমিন হোসেন, ট্রেজারার মোহাম্মদ রবিউল্লাহ, প্রচার সম্পাদক মো: শাহজালাল এবং কার্যনির্বাহী সদস্য ইসমাইল হোসেন।

২০০৯ সাল থেকে সুবিধা বঞ্চিত পথশিশুদের হাতে ঈদের নতুন পোশাক তুলে দেওয়ার লক্ষ্যে মিডিয়া মিউজিয়াম অব বাংলাদেশ “ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি “নামে তাদের কার্যক্রম শুরু করে।

এরপর থেকে পথশিশুদের জন্য প্রতি ঈদেই কিছু না কিছু করার চেষ্টা করে আসছে সংগঠনটি। এসব শিশুদের ভালোবেসে সংগঠনের সদস্য ও শুভানুধ্যায়ীরা এবারো তাদের ঈদ বাজেটের একটা অংশ ” ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি ” ফান্ডে জমা দেয়। যা দিয়ে ছিন্নমূল এই শিশুদের ঈদে নতুন ড্রেস কিনে দেওয়া হল।

প্রতিক্ষণ/এডি/রাহা

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য



আর্কাইভ

July 2024
S S M T W T F
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
2728293031  
20G