পার্বত্য বান্দরবানের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ঘোষণা-পর্যটক ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করুন

প্রকাশঃ অক্টোবর ১৮, ২০২২ সময়ঃ ২:১১ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ২:১১ অপরাহ্ণ

পার্বত্য বান্দরবানের সীমান্ত-র দুই উপজেলায় ভ্রমনকারীদের আগ্রহ কমাতে ফেসবুকে পোষ্ট দিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। বান্দরবানের অধ্যুষিত‌‌‌ এলাকায় নিরাপত্তা বাহিনীর সাঁড়াশি অভিযানের মুখে অপ্রীতিকর ঘটনার আশঙ্কা এবং সাম্প্রতিক সময়ে উদ্ভুত পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে সার্বিক নিরাপত্তার স্বার্থে বান্দরবান জেলার রুমা উপজেলা ও রোয়াংছড়ি উপজেলায় পর্যটক ভ্রমণের ক্ষেত্রে নিরুৎসাহিত করার জন্য বলা হয়েছে। ১৭ই অক্টোবর সোমবার রুমা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এবং রোয়াংছড়ি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে বিষয়টি জানানো হয়।

১৮অক্টোবর (মঙ্গলবার) থেকে জেলার রোয়াংছড়ি এবং রুমা উপজেলায় ভ্রমণের ক্ষেত্রে পর্যটকদের নিরাপত্তার স্বার্থে ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করার কথা জানিয়েছেন উপজেলা প্রশাসন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রুমা উপজেলা নির্বাহী অফিসার( ইউএনও) মোঃ মামুন শিবলী।

তিনি আরো জানান, সম্প্রতি রুমা এলাকায় বিভিন্ন সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন গুলোর আনাগোনা বৃদ্ধি পাওয়ায় পর্যটকদের সার্বিক নিরাপত্তার স্বার্থে আগামীকাল মঙ্গলবার(১৮ অক্টোবর) থেকে রুমা উপজেলায় পর্যটক ভ্রমণের ক্ষেত্রে নিরুৎসাহিত করা হয়েছে।

রোয়াংছড়ি উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মোঃ খোরশেদ আলম চৌধুরী জানান, রোয়াংছড়ি উপজেলায়ও আগামী ১৮ অক্টোবর থেকে পর্যটন কেন্দ্রসমূহে পর্যটক ভ্রমণে নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে।

বান্দরবানের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্য ভ্রমণে প্রতিদিন হাজারো পর্যটক ভ্রমণ করেন। রুমা উপজেলায় পর্যটকদের পছন্দের জায়গা রহস্যঘেরা বগালেক, দ্বিতীয় সর্বোচ্চ পাহাড় কেওক্রাডং পাহাড় অবস্থিত যেখানে প্রতিদিন শত শত পর্যটক ভ্রমণ করেন। আর রোয়াংছড়ি উেপজেলায় জনপ্রিয় পর্যটন স্থান দেবতাকুম রয়েছে।অনাকাঙ্ক্ষিত দুর্ঘটনা এড়ানোর জন্য জেলার দুই উপজেলায় আগত পর্যটন কেন্দ্র সমূহে ভ্রমণের ক্ষেত্রে পর্যটকদের নিরুৎসাহিত করার পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।

সূত্র : সাামজিক যোগাযোগ মাধ্যম

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য



আর্কাইভ

October 2022
S S M T W T F
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
293031  
20G