WordPress database error: [Disk full (/tmp/#sql_1df056_0.MAI); waiting for someone to free some space... (errno: 28 "No space left on device")]
SELECT COLUMN_NAME FROM INFORMATION_SCHEMA.COLUMNS WHERE table_name = 'sdsaw42_hsa_plugin' AND column_name = 'hsa_options'


Warning: mysqli_num_fields() expects parameter 1 to be mysqli_result, bool given in /var/www/vhosts/protikhon.com/httpdocs/wp-includes/wp-db.php on line 3547

WordPress database error: [Duplicate column name 'hsa_options']
ALTER TABLE sdsaw42_hsa_plugin ADD hsa_options VARCHAR(2000) NOT NULL DEFAULT ''

চবিতে এবার ছিনতাই করলো ছাত্রলীগ কর্মীরা চবিতে এবার ছিনতাই করলো ছাত্রলীগ কর্মীরা

চবিতে এবার ছিনতাই করলো ছাত্রলীগ কর্মীরা

প্রথম প্রকাশঃ এপ্রিল ১৮, ২০১৭ সময়ঃ ৯:০৪ পূর্বাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১:৩৪ অপরাহ্ণ

মিনহাজুল ইসলাম তুহিন:

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ঘুরতে আসা বহিরাগত তিন ছাত্রের ক্যামেরা,মোবাইল ও টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বি সুজনের গ্রুপের কর্মীরা।

সোমবার (১৭ এপ্রিল) দুপুর সাড়ে ১২টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ফরেস্টি অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স ইনস্টিটিউটের সামনে ছবি তোলার সময় এ ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগী তিন ছাত্র মোঃ আরমান, আরিফ ইসলাম ও মোঃ নাঈম তিনজনই হাটহাজারী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের ছাত্র। উদ্ধারের পর তারা বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর বরাবর লিখিত অভিযোগ দেয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সুত্রে জানা যায়, বাহিরাগত শিক্ষার্থীরা ইনস্টিটিউটের সামনে রাস্তায় ছবি তোলার সময় বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বি সুজনের অুনসারীরা তাদের নাম পরিচয় জিজ্ঞাসা করে।

তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী নয় জানতে পেরে এক পর্যায়ে ইতিহাস বিভাগের ২০১৩-১৪ সেশনের নাহিদ হাসানের নেতৃত্বে ২০১৪-১৫ সেশনের আইন বিভাগের সাদাফ খান কবির, আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিউটের ২০১৫-১৬ সেশনের ইশতেহাদ রিয়াদ এবং তায়েব তাদেরকে জিম্মি করে তাদের কাছ থেকে ডিএসএলআর ক্যামেরা, মোবাইল এবং টাকা নিয়ে ফেলে। এ সময় তাদের কাছ থেকে দশ হাজার টাকা দাবী করে অপহরণকারীরা।

টাকা দিতে অপারগ হওয়ায় তাদের জিম্মি করে প্রথমে সোহরোওয়ার্দী হলে এবং পরে বঙ্গবন্ধু হলে নিয়ে যায়।পরে শহিদ মিনার এলাকা থেকে অপহরণের শিকার ওই তিন ছাত্রকে পুলিশ উদ্ধার করে প্রক্টর অফিসে নিয়ে আসে । সেখানে সিসিটিভির ফুটেজ দেখে অপহরণকারীদের প্রাথমিক ভাবে সনাক্ত করা হয়।

ঘুরতে আসা তিন শিক্ষার্থীদের মধ্যে আরমান জানান, “আমরা তিন বন্ধু মিলে বিশ্ববিদ্যালয়ে ঘুরতে এসে ফরেস্টিতে ছবি তুলতে গেলে কয়েকজন ছাত্র আমাদের পরিচয় জানতে চায়। আমরা পরিচয় দিলে তারা আমাদের কাছ থেকে ১০ হাজার টাকা দাবী করে।টাকা দিতে না পারায় আমাদের ডিএসএলআর ক্যামেরা, মোবাইল এবং মানিব্যাগ নিয়ে যায়। পরে আমাদের জিম্মি করে পরিবারের কাছ থেকে টাকা দাবী করে।”

আরমান আরো জানায়, “এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর অফিসে একটি লিখিত অভিযোগ করেছি। আশা করি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এই ঘটনার সুষ্ঠু
বিচার করবে।”

এ প্রসঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বি সুজনের কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।
বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর নিয়াজ মোর্শেদ রিপন বলেন, হাটহাজারী কলেজের তিন ছাত্র ঘুরতে আসলে কয়েকজন ছাত্র তাদের কাছ থেকে ক্যামেরা ও মোবাইল ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে ভুক্তভোগীরা। আমরা সিসিটিভির ফুটেজ দেখে জড়িতদের সনাক্ত করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিব।

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য

সর্বাধিক পঠিত

20G