“ভালোবাসার তালা”তে বাধ সাধলো প্যারিস!

প্রকাশঃ আগস্ট ১০, ২০১৬ সময়ঃ ৭:২৯ অপরাহ্ণ.. সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৭:৩০ অপরাহ্ণ

প্রতিক্ষণ ডেস্ক:

bridgeপ্রেম, ভালোবাসা কখনোই কোনো বাঁধা মানেনি। আর কখনো মানবেও না। ভালোবাসার শক্তিকে পরাস্ত করবে এমন সাধ্য আছে কার। প্যারিস কর্তৃপক্ষ যে এ কথা যে জানে না, তা কিন্তু নয়। তবু তারা প্রেমিকযুগলদের একটা কাজে বাধা দিতে চায়। অটুট ভালোবাসার চিহ্ন হিসেবে স্থানীয় একটি সেতুর ওপর ‘প্রেমের তালা’ লাগান প্রেমিক-প্রেমিকারা। এতেই যত আপত্তি নগর কর্তৃপক্ষের। শুধু আপত্তি হলেও তো হত, এ বিষয়ে তারা আরও কঠোর নিষেধাজ্ঞা দিতে যাচ্ছে।

ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস। পর্যটকদের কাছে খুব পছন্দের শহর এই প্যারিস। এই প্যারিস শহরের সেইন নদীর ওপরে পঁ নফ নামের সেতুটি ভালোবাসার প্রতীক হিসেবে এক ধরনের বিশাল পরিচিতি পেয়েছে। সেখানে বেড়াতে গিয়ে এই বিশেষ সেতুর রেলিংয়ে একটা ছোট তালা ঝুলিয়ে আসতে পছন্দ করেন প্রেমিকযুগলেরা। এই যুগলেরা মনে করে এই তালা ঝুলিয়ে তারা তাদের সম্পর্ক আরো মজবুত এবং চিরস্থায়ী করতে পারবে। কিন্তু সমস্যা হলো, এই বিপুল সংখ্যক তালার ভারে সেতুটির একটা অংশ ধসে পড়েছে।

কর্তৃপক্ষ গত বছর প্রায় লক্ষাধিক তালা সেতু থেকে খুলে নিয়ে যায়। আর কেউ যাতে নতুন করে সেতুতে তালা মারতে না পারে, সে জন্য স্বচ্ছ প্লাস্টিকের বেড়াও দেওয়া হয়েছে সেতুর সামনে। তবে এতে পর্যটকদের আকর্ষণ মোটেও কমেনি প্যারিসের প্রাচীনতম সেতুটির প্রতি; বরং ৪০০ বছরের বেশি পুরোনো এই ‘ভালোবাসার সেতু’তে তালা লাগানোর দিকে ঝোঁক আরও বেড়েছে যুগলদের।

love-locksপ্যারিসের ডেপুটি মেয়র ব্রুনো জুইয়ার্দ বলেন, সেতুটি রক্ষা করার জন্য সেতুর দুই প্রান্তে সাইনবোর্ড লাগাবেন তাঁরা। এতে ফরাসি ও ইংরেজিতে লেখা থাকবে, ‘তালা দেওয়া নিষেধ। প্যারিসের পক্ষ থেকে আপনাকে ধন্যবাদ। অন্য কোনো উপায়ে নিজেদের ভালোবাসা প্রকাশ করুন।’

ব্রুনো আরও বলেন, ‘আমরা চাই, প্রেম ও রোমান্সের শহর হিসেবে পরিচিত প্যারিস টিকে থাকুক। সারা বিশ্বের প্রেমিক-প্রেমিকারা এখানে বেড়াতে আসবেন। এটা খুবই রোমান্টিক নগর।’

প্রতিক্ষণ/এডি/এএসটি

আরো সংবাদঃ

মন্তব্য করুনঃ

পাঠকের মন্তব্য



আর্কাইভ

February 2024
S S M T W T F
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
242526272829  
20G